• সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ০৯:০১ অপরাহ্ন

এশিয়া কাপের আগের অনুশীলন নিয়ে মুখ খুললেন হাথুরু

অনলাইন ভার্সন
অনলাইন ভার্সন
আপডেটঃ : শনিবার, ২৬ আগস্ট, ২০২৩

খেলাধুলা প্রতিবেদক

 

শেষ ১০ দিনের বেশি সময় মিরপুর শের-ই বাংলা স্টেডিয়ামে দরজা বন্ধ করে অনুশীলন সেরেছে বাংলাদেশ দল। যে কারণে খুব বেশি জানার ছিল না এ সময়ে ক্রিকেটাররা কি ধরণের অনুশীলন করেছে। তবে আজ শনিবার মিরপুরে সংবাদ সম্মেলনে সে বিষয়ে পরিস্কার করেছেন প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে।

শুরুতে তিনি বলেন, ‘প্রস্তুতি নিয়ে আমি খুব খুশি। শুরুর দিকে ফিটনেস ও মেডিকেল ভালো গিয়েছে। মাঝখানে আমরা স্কিলের উন্নতি নিয়ে সপ্তাহখানেক কাজ করেছি। এরপর সাতদিন ছিল একটু বেশি টেকটিক্যাল ও কার কী দায়িত্ব এ নিয়ে। শেষ পাঁচদিনে ক্রিকেটাররা ব্যক্তিগতভাবে কী করতে চায় এসব।’

‘শেষে এসে একটা প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছি। প্রথমবারে অনেকগুলো দলের সঙ্গে খেলা হয়েছে, ক্রিকেটারদের জন্য ইন্টেনসিটি ধরে রাখা কঠিন ছিল। কিন্তু শেষ ম্যাচটা খুবই ব্যতিক্রম ছিল, যেখানে খেলোয়াড়রা শেষ বল অবধি লড়াই করেছে যতক্ষণ না আমি তাদের আসতে বলেছি। শেষ হয়েছে প্রায় সাড়ে দশটার দিকে। আমি এটা নিয়ে অনেক খুশি।’

এশিয়া কাপের সুপার ফোরে উঠার ব্যাপারে কতটুকু আশাবাদী হাথুরু এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য হচ্ছে, প্রথমে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠা। আপনি যেমন বলেছেন, আমরা এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কায় তাদের বিপক্ষে খেলবো। তারা তাদের মাঠে খুবই ভালো দল। এরপর আমরা আফগানিস্তানের বিপক্ষে পাকিস্তানে খেলবো, তারা ওখানে খেলে সিরিজ জিতেছে। তাই অনেক বড় চ্যালেঞ্জ আছে, কিন্তু আমরা তৈরি।’

এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ। বর্তমান সময়ে তাদের বিপক্ষে খেলা মানেই বাড়তি উত্তেজনা। তবে হাথুরুর মাথায় এসব থাকছে না। তিনি বলেন, ‘আমি এই প্রতিদ্বন্দ্বিতার ব্যাপারে জানি না। কিন্তু ওই দুটো দল (শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তান) খুবই ভালো খেলেছে একে-অপরের বিপক্ষে, বিশেষত গত এশিয়া কাপে। আমার মনে হয় দুটো দলই আমাদের ভালো চ্যালেঞ্জ জানাবে। কিন্তু একই সঙ্গে, সাম্প্রতিক সময়ে তাদের বিপক্ষে সাফল্য আছে আমাদের। এজন্য আমরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা হিসেবে ধরছি না। কিন্তু দুই দলের বিপক্ষেই আমাদের কৌশল থাকবে কীভাবে সুবিধা পেতে পারি।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ